আরাফাত হোসেনঃ বিশেষ প্রতিনিধি।

বগুড়ার নন্দীগ্রামে মাদকদ্রব্য গাঁজা বিক্রয়কালে উপজেলার শীর্ষ মাদক কারবারি ও একাধিক মামলার আসামি মুক্তার হোসেনকে (৪৬) হাতেনাতে আটক করেছে পুলিশ। সে উপজেলার ভাটগ্রাম ইউনিয়নের বিজরুল হাসপাতাল সংলগ্ন এলাকার আবু তাহেরের ছেলে।

মঙ্গলবার বিকেলে তাকে কোর্ট হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। এরআগে সকালে থানা এলাকায় ওয়ারেন্ট তামিল ও মাদকদ্রব্য উদ্ধার অভিযান চলাকালে বিজরুল পাশ্ববর্তী বর্ষণ তিনমাথা মোড় এলাকা থেকে মাদক কারবারি মুক্তার হোসেনকে আটক করা হয়। এসময় পথচারিদের উপস্থিতিতে তার দেহ তল্লাশি করে ৫০০গ্রাম গাঁজা উদ্ধার ও মাদক পরিবহনে ব্যবহৃত একটি ১৫০সিসি পালসার মোটরসাইকেল (বাইক) জব্দ করা হয়েছে।

 

জানা গেছে, বর্ষণ তিনমাথা মোড় এলাকায় কড়ই গাছের সামনে পাকা রাস্তার ওপর গাঁজা বিক্রয় করা হচ্ছে, এমন গোপন তথ্যের ভিত্তিতে পুলিশ অভিযান চালায়। পুলিশের উপস্থিতি টেরপেয়ে মোটরসাইকেলযোগে পালানোর চেষ্টাকালে তাকে আটক করা হয়। এসময় জিজ্ঞাসাবাদে তার কাছে মাদকদ্রব্য গাঁজা রয়েছে বলে স্বীকার করে। পথচারিদের উপস্থিতিতে মুক্তার হোসেনের দেহ তল্লাশি করার সময় পরিহিত লুঙ্গীর টেমর থেকে সাদা পলিথিনের মধ্যে কাগজে মোড়ানো এক পোটলা ২৫০ গ্রাম ও কালো পলিথিনের মধ্যে কাগজে মোড়ানো এক পোটলা ২৫০ গ্রাম গাঁজা সে নিজ হাতেই বের করে দেয়।

ওই মাদক কারবারির বিরুদ্ধে নন্দীগ্রাম থানার উপ-পরিদর্শক বিকাশ চক্রবর্তী বাদী হয়ে থানায় মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইনে মামলা দায়ের করেছেন।

পুলিশ জানিয়েছে, মুক্তার দীর্ঘদিন ধরে তার ব্যবহৃত মোটরসাইকেলযোগে বিভিন্ন এলাকা থেকে মাদকদ্রব্য গাঁজা সংগ্রহ করে বিজরুলসহ আশপাশের এলাকায় বিক্রয় করে। তার বিরুদ্ধে থানায় একাধিক মামলা রয়েছে।

পোস্টটি শেয়ার করুনঃ